1. admin@www.rangamatipratidin.com : রাঙ্গামাটি প্রতিদিন :
শনিবার, ২৩ অক্টোবর ২০২১, ০২:৪৫ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ :
নানিয়ারচর উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা পরিষদের আয়োজিত বিদায় এবং বরণ অনুষ্ঠান আসন্ন শারদীয় দূর্গাপূজা উপলক্ষে,উপজেলা প্রশাসনের মত-বিনিময় সভা। নানিয়ারচরে উন্নয়ন মূলক কাজের শুভ উদ্বোধন করলেন জেলা পরিষদ সদস্য ইলিপন চাকমা নানিয়ারচরে জাতীয় উৎপাদনশীলতা দিবস-২১ পালিত নানিয়ারচরে মহিলা কাবাডি প্রশিক্ষণ এর সমাপনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত বিদ্যালয়ের প্রথম দিনে পরিদর্শন করলেন: নানিয়ারচর ইউএনও নানিয়ারচরে উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা পরিষদের মাসিক সভা অনুষ্ঠিত নানিয়ারচর উপজেলা ক্রীড়া সংস্থা’র দায়িত্বে পরিবর্তন নানিয়ারচরে জেলা পরিষদ সদস্য ইলিপন চাকমা’র সহায়তা প্রদান নানিয়ারচরে আওয়ামী লীগের আয়োজিত ১৫ আগস্টের দলীয় কর্মসূচি

অবশেষে পাহাড়ের সবচেয়ে প্রভাবশালী প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান হলেন নিখিল কুমার চাকমা

নিউজ ডেক্সঃ
  • প্রকাশিত: শনিবার, ১২ জুন, ২০২১
  • ৩৫৭ বার পড়া হয়েছে

অবশেষে পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান হলেন নিখিল কুমার চাকমা।

শত জল্পনা কল্পনার অবসান ঘটিয়ে পাহাড়ের সবচেয়ে বড় উন্নয়ন মূলক প্রতিষ্ঠানের চেয়ারম্যান হলেন নিখিল কুমার চাকমা।

বেশ কিছুদিন ধরে নানা গুঞ্জন শোনা গেলেও,সব কিছুকে পিছনে ফেলে বিজয় মালা গলায় পড়লেন পাহাড়ের এই নেতা।

রাঙ্গামাটি থেকে এই প্রথম দলীয় ভাবে মনোনীত করা হয়েছে রাঙ্গামাটি জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নিখিল কুমার চাকমা’কে।

তিনি ছিলেন রাঙ্গামাটি পার্বত্য জেলা পরিষদের সাবেক সফলতম চেয়ারম্যান।

জম্মসূত্রে,নিখিল কুমার চাকমা নানিয়ারচর উপজেলার বেতছড়ি এলাকার জন্মগ্রহণকারী সন্তান।তার বাবা তিলক চন্দ্র চাকমা ছিলেন নানিয়ারচর উপজেলা পরিষদের সাবেক সফল চেয়ারম্যান।

রাজনৈতিক পরিচয়ে তিনি ছিলেন নানিয়ারচর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহ-সভাপতি ও পরবর্তীতে সফল সভাপতির দায়িত্ব পালন করেন।

বর্তমানে তিনি রাঙ্গামাটি জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

তৃণমূল থেকে উঠে আসা এই নেতা পাহাড়ের খুবই  জনপ্রিয়। রাঙ্গামাটির সাংসদ দীপংকর তালুকদার এমপি’র যোগ্য উত্তরসূরী হিসেবেও রাজনৈতিক অঙ্গনে বেশ পরিচিত এই জননন্দিত নেতা। অত্যেন্ত কর্মী বান্ধব নেতা হিসেবে পরিচিত তিনি।

দীর্ঘদিন আমলা দিয়ে পরিচালিত হয়ে আসছে পাহাড়ের এই সবচেয়ে উন্নয়নমূলক প্রতিষ্ঠানটি।১৯৭৬ সালে প্রতিষ্ঠিত হয় এই পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ড।

দেখতে নান্দনিক ও বিলাশবহুল এই প্রতিষ্ঠানের প্রধান কার্যালয় রাঙ্গামাটিতে।

২০০১ সালে বিএনপির শাসন আমলে
খাগড়াছড়ি থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য ওয়াদুত ভুইয়াকে তৎকালীন সময়ে এই পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব দেয়া হয়।
তার পরবর্তীতে ২০০৮ সালে বান্দরবান থেকে নির্বাচিত সংসদ সদস্য বীর বাহাদুরকে চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব দেয়া হয়।

মুলতঃওয়াদুত ভুইয়া দায়িত্ব থাকাকালীন এই ভবনের আধুনিক নির্মাণ কাজের শুরু হয়।

এটি তিন পার্বত্য জেলার উন্নয়ন মূলক প্রতিষ্ঠানের মধ্যে সবচেয়ে প্রভাবশালী প্রতিষ্ঠান।
যদিও তিন জেলার কোটি কোটি টাকার কাজ হয় এই প্রতিষ্ঠান থেকে।
তারপরও এর প্রধান কার্যালয় রাঙ্গামাটিতে।

তারপর আমলা দিয়ে পরিচালিত হয়ে আসছে পাহাড়ের এই সবচেয়ে উন্নয়ন মূলক প্রতিষ্ঠানটি।
২০১৪ সালে বান্দরবানের সাংসদ বীর বাহাদুর পার্বত্য মন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পাওয়ায় শুণ্য হয়ে যায়
চেয়ারম্যান এর পদটি।
পরবর্তীতে পার্বত্য মন্ত্রণালয়ের সচিব নব বিক্রম কিশোর ত্রিপুরা কে চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব দেয় সরকার।

তিনি টানা ২য় মেয়াদে ১০ বছর দায়িত্ব পালন শেষে গত ২০২১ সালের ১৮ মার্চ মেয়াদ শেষ হলে,চেয়ারম্যান এর পদটি আবারও শুণ্য হয়ে যায়।

সরকারি আমলা দিয়ে দীর্ঘদিন পরিচালিত হলেও,নানা গুঞ্জনের জম্ম দিয়েছে মাঝখানের সময়টাতে।
কে হচ্ছেন পরবর্তী চেয়ারম্যান, নাকি আবার কোন আমলা দিয়ে পরিচালিত হবে পাহাড়ের সবচেয়ে বড় প্রভাবশালী এই প্রতিষ্ঠান।

খাগড়াছড়ির সাংসদ কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরা,মহিলা সাংসদ বাসন্তি চাকমা, সুদত্ত চাকমা সহ নানা নাম শোনা গেলেও প্রতিযোগিতার দৌড়ে এগিয়ে ছিলেন
রাঙ্গামাটির নিখিল কুমার চাকমা।
অপরদিকে ইতিমধ্যে রাঙ্গামাটির সাংসদ দীপংকর তালুকদার খাদ্য মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সভাপতি হিসেবে মনোনীত হয়েছেন।

দীর্ঘদিন পর আমলা থেকে আবার দলীয় মনোনয়নে দায়িত্ব দেয়া হয়।
রাঙ্গামাটি থেকে এই প্রথম দলীয় মনোনীত হিসেবে
পার্বত্য চট্টগ্রাম উন্নয়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান এর দায়িত্ব পান জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি নিখিল কুমার চাকমা।
যা রাষ্ট্রীয় মর্যাদার সমতূল্য।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ পড়ুন